রাত ০২:১৮, বুধবার, ১৮ মে, ২০২২, ৪ জ্যৈষ্ঠ

স্বামী-সন্তানকে কোপালেন স্ত্রী

কুড়িগ্রামের রৌমারীতে পারিবারিক কলহের জেরে শিশু সন্তান ও স্বামীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে শারমিন খাতুন নামে এক গৃহবধূকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।  

১৮ ডিসেম্বর রৌমারী উপজেলার দাঁতভাঙ্গা ইউনিয়নের কাউনিয়ারচর মধ্যপাড়া শালুর মোড় নামক এলাকায় স্বামী সোহেল রানার বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর রাতে গ্রামবাসী ওই গৃহবধূকে আটক করে রৌমারী থানায় সোপর্দ করে।

জানা গেছে, উপজেলার কাউনিয়ার চর মধ্যপাড়া গ্রামের সোহেল রানার সঙ্গে শৌলমারী ইউনিয়নের বাউসমারী গ্রামের শারমিন খাতুনের গত দুই বছর আগে বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে তাদের দাম্পত্য জীবন ভালোই চলছিল। তাদের ঘরে শান্ত মিয়া নামে ৮ মাস বয়সের একটি ছেলে সন্তানও রয়েছে।

কিন্তু গত কয়েক দিন থেকে স্বামী ও স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহের সৃষ্টি হয়। এরই জেরে গতকাল সন্ধ্যার দিকে গৃহবধূ শারমিন তার সন্তান শান্তকে হত্যার উদেশ্যে দেশিয় ধারালো ছুরি দিয়ে শরীরের বিভিন্ন অংশে আঘাত করতে থাকেন। পরে তার স্বামী সোহেল রানা সন্তানকে বাচাঁতে এগিয়ে আসলে তাকেও এলোপাতাড়িভাবে কোপাতে থাকেন। পরে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে সোহেল রানা ও শান্তকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে রৌমারী হাসপাতালে ভর্তি করেন। আহতদের অবস্থা আশংঙ্কাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন।

এ বিষয়ে রৌমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোন্তাছের বিল্লাহ বলেন, গৃহবধূ শারমিন খাতুনের নামে মামলা দিয়ে  কুড়িগ্রাম জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

Share This Article


১০০ টাকা ছাড়িয়েছে খোলা বাজারে ডলারের দাম

আবারো বাড়লো স্বর্ণের দাম

বিশ্বকাপের আগে নিউজিল্যান্ডে বাংলাদেশের ত্রিদেশীয় সিরিজ

নর্থ সাউথের ১০টি বিলাসবহুল গাড়ি বিক্রির নির্দেশ

পল্লবীর মৃত্যু: অভিনেত্রীর প্রেমিক গ্রেপ্তার

প্লাস্টিক সার্জারি করাতে গিয়ে ২১ বছর বয়সী অভিনেত্রীর মৃত্যু

বড়বোনের বাড়িতে বেড়াতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

আমাকে হানিমুনে গিয়েই মেরে ফেলতে চেয়েছিল :

করোনা নিয়ন্ত্রণে এবার সেনা নামাল উত্তর কোরিয়া

‘যুদ্ধ বন্ধের’ পথ বন্ধ হয়ে গেছে: রাশিয়া

হাসপাতালে ভর্তি বিএনপি নেতা মির্জা আব্বাস

দাপুটে শেষ টাইগারদের!

পি কে হালদারকে হস্তান্তরে সময় লাগবে : দোরাইস্বামী

পদ্মা সেতুর চূড়ান্ত টোল নির্ধারণ

আরও ১০ দিনের রিমান্ডে পি কে হালদার