Templates by BIGtheme NET
৪ কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ২০ অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ , ২ রবিউল আউয়াল, ১৪৪২ হিজরি
Home » বিনোদন » মাদক নিয়ে সেই কথোপকথন স্বীকার করলেন দীপিকা

মাদক নিয়ে সেই কথোপকথন স্বীকার করলেন দীপিকা

প্রকাশের সময়: সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২০, ৯:২৩ পূর্বাহ্ণ

বিনোদন ডেস্ক : বলিউডের মাদককাণ্ডে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ভারতের নারকোটিকস কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি) তলব করেছিল বলিউড অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোন, সারা আলি খান, শ্রদ্ধা কাপুর ও রাকুল প্রীত সিংকে। গতকাল রাকুল প্রীত সিংকে জেরা করা হয়। আর আজ জেরা করা হচ্ছে দীপিকা পাড়ুকোন, সারা আলি খান ও শ্রদ্ধা কাপুরকে।

ভারতীয় গণমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, মাদক-সংক্রান্ত আলোচনার জন্য একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের কথা এনসিবিকে জানান সুশান্তের সাবেক ম্যানেজার জয়া সাহা। সেই হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের সূত্র ধরেই তলব করা হয়েছে এই অভিনেত্রীদের।

আনন্দবাজার পত্রিকার খবর, আজ জেরার জন্য এনসিবি দপ্তরে দীপিকা যান ভারতীয় সময় ৯টা ৪৫ মিনিটের দিকে। আর বেলা পৌনে ১১টার দিকে এনসিবি দপ্তরে যান শ্রদ্ধা এবং সারা যান দুপুর ১২টার দিকে।

এনসিবি সূত্রে ভারতীয় গণমাধ্যম রিপাবলিক ওয়ার্ল্ডের খবর, আজ পাঁচ সদস্যের একটা টিম পাঁচ ঘণ্টা ধরে জেরা করে দীপিকাকে। গতকাল জেরার পর দীপিকা পাড়ুকোনের ম্যানেজার কারিশমা প্রকাশকে আজ জেরার জন্য ডাকা হয় এবং দুজনকে মুখোমুখি বসিয়ে জেরা করা হয়। জেরার একপর্যায়ে ২০১৭ সালের সেই মাদক নিয়ে খোলা গ্রুপের চ্যাটের কথা স্বীকার করেছেন দীপিকা। তবে তিনি এটাও দাবি করেছেন, মাদক নিয়ে আলোচনা করলেও তিনি নিজে মাদক নেননি কোনোদিন। যদিও দীপিকার এই উত্তরে খুশি হতে পারেননি এনসিবি কর্মকর্তারা।

আনন্দবাজার পত্রিকার খবর, মাদককাণ্ডে দীপিকার নাম জড়িয়ে যাওয়ার নেপথ্যে মূলত বছর তিনেক আগের এক হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট। গত সোমবার এনসিবির হাতে আসে ওই চ্যাট। তাতে দেখা গিয়েছিল, ‘ডি’ ও ‘কে’ নামে দুই ব্যক্তির মধ্যে মাদক নিয়ে বেশ কিছু কথাবার্তা হয়েছে। কখনো ‘ডি’ ‘কে’র কাছে ‘হ্যাশ’ চেয়েছে, আবার কখনো ‘কে’ তাকে হ্যাশের জোগানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। ধারণা করা হচ্ছিল, এই ‘ডি’ ও ‘কে’ যথাক্রমে দীপিকা পাড়ুকোন ও কারিশমা প্রকাশ। এ অবস্থা আরো জটিল হয় সুশান্তের সাবেক ম্যানেজার জয়া সাহা চ্যাটের কথা স্বীকার করে নিলে। জয়ার কথায়, কারিশমা, জয়া ও দীপিকা—এ তিনজনের একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছিল। জয়াই খুলেছিলেন গ্রুপটি। অ্যাডমিন ছিলেন দীপিকা এবং সদস্য ছিলেন কারিশমা।

এর আগে দীর্ঘ আলোচনার পর মাদক মামলায় গেল ৮ সেপ্টেম্বর গ্রেপ্তার হন প্রয়াত বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের সবশেষ প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী। এরপর রিয়ার জামিন আবেদন নাকচ করে ১৪ দিনের কারাবাসে পাঠানো হয় তাঁকে। ২২ সেপ্টেম্বর মাদক মামলা-সংক্রান্ত বিশেষ আদালত এনডিপিএস (নারকোটিকস ড্রাগস অ্যান্ড সাইকোট্রপিক সাবস্ট্যান্সেস) তাঁর কারাবাসের মেয়াদ ৬ অক্টোবর পর্যন্ত বাড়িয়েছেন।

গত ২৫ জুলাই সুশান্তের বাবা কে কে সিং অভিনেত্রী ও প্রয়াতের প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে আত্মহত্যায় প্ররোচনা এবং বিষণ্ণতার জন্য তাঁকে দায়ী করে এফআইআর দায়ের করেন।

১৪ জুন বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুত মুম্বাইয়ের বান্দ্রায় নিজের ফ্ল্যাটে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন। তবে কী কারণে সুশান্ত আত্মহত্যা করেছেন, সেই রহস্য এখনো কাটেনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

2 × five =