Templates by BIGtheme NET
২৬ আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ১০ জুলাই, ২০২০ ইং , ১৮ জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী
Home » বিবিধ » হাতিরঝিলে কেন এই ‘মানব কুকুর’

হাতিরঝিলে কেন এই ‘মানব কুকুর’

প্রকাশের সময়: ডিসেম্বর ২৯, ২০১৯, ৫:৩১ অপরাহ্ণ

নিজস্ব সংবাদ: প্রকাশ্য দিবালোকে মানুষ কেন কুকুরের মতো চলাফেরা করছে। ‘হিউম্যান ডগ’বা ‘মানব কুকুর’নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় এখন আলোচনা-সমালোচনার ঝড় বইছে। সম্প্রতি ঢাকার হাতিরঝিলের রাস্তায় হিউম্যান ডগ সেজে টুটুল চৌধুরী নামে এক ব্যক্তি হেটেঁছেন।

সেঁজুতি নামের এক নারীর হাতে ছিলো সেই কুকুরের রশি। সেঁজুতি তাকে পথ দেখিয়ে নিয়ে গিয়েছেন। সেই সময় কিছু ছবি মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায় সামাজিক মাধ্যমে। শুরু হয় আলোচনা-সমালোচনা।

ধারণাটি বাংলাদেশে প্রথম হলেও পশ্চিমা বিশ্বে নতুন নয়। পশ্চিমারা এর নাম দিয়েছেন ‘পারফর্মিং আর্ট’। পারফর্মিং আর্ট ১৯৬৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে অস্ট্রিয়ার ভিয়েনায় প্রথম দেখা যায়।

পারফর্মিং আর্টে প্রথম অংশ নেন ভ্যালি এক্সপোর্ট ও পিটার উইবেল। কার্টুনে যেমন বিভিন্ন প্রাণিকে মানুষের মতো কথা বলা ও আচরণগতভাবে দেখানো হয় ঠিক তেমন।

২৬ ডিসেম্বর সেই ‘পারফর্মিং আর্ট’ ফ্রম পোর্টফোলিও অব ডগডনেসের পুনারাবৃত্তি ঘটে রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকায়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পেইন্টিং ও ড্রয়িংয়ের শিক্ষার্থী সেঁজুতি এর নাম দিয়েছেন ‘সমাজতাত্ত্বিক’ ও ‘আচরণমূলক’ কেসস্ট্যাডি

সেঁজুতির ভাষায়, এই ছবিতে একজন নারী একজন পুরুষকে গলায় রশি বেঁধে টেনে নিয়ে যাচ্ছে। এতে সমাজ আমাদের ওপর যে সিস্টেম চাপিয়ে দিয়েছে সেটাই ফুটে উঠেছে। এই কাজটাকে সাধারণ মানুষ কীভাবে নিয়েছে সেটাই আমরা দেখতে চেয়েছি।’

এদিকে সোশ্যাল মিডিয়ায় এ পারফর্মিং আর্টের ছবি ও ভিডিও ভাইরাল হয়েছে নেতিবাচকভাবে। আরো বলা হচ্ছে, আমাদের সমাজে ঢুকে গেল পশ্চিমা নিম্ন প্রকৃতির সংস্কৃতি।

জানা গেছে, ডিএমপির অনুমতি নিয়ে ঢাবির কয়েকজন শিক্ষার্থী, এই মনস্তাত্বিক পরীক্ষাটি চালায়। এর অর্থ – প্রাচীন ক্রীতদাসের মতো আধুনিক যুগেও আপনি মানুষ কিনে তাকে দিয়ে যা ইচ্ছে, তা-ই করাতে পারেন। আর হিউম্যান ডগের মাধ্যমে এটিকেই ব্যঙ্গ করা হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

fourteen − eleven =