Templates by BIGtheme NET
১ আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং , ১৬ মুহাররম, ১৪৪১ হিজরী
Home » আন্তর্জাতিক » চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ
৯/১১ এর ভয়াবহ হামলার ৪৮ ঘন্টা আগে আমেরিকাকে সতর্ক করেন পুতিন

চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ
৯/১১ এর ভয়াবহ হামলার ৪৮ ঘন্টা আগে আমেরিকাকে সতর্ক করেন পুতিন

প্রকাশের সময়: সেপ্টেম্বর ৮, ২০১৯, ১২:১৯ অপরাহ্ণ

আমেরিকার বুকে ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বর ভয়াবহ জঙ্গি হামলার ঘটনা ঘটে। দীর্ঘ ১৯ বছর পর সেই ঘটনার চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ্যে এসেছে। হামলার ঠিক দুদিন আগে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন মার্কিন তৎকালীন প্রেসিডেন্ট জর্জ ডাব্লিউ বুশকে ভয়ঙ্কর এই ধরনের হামলার ব্যাপারে সতর্ক করেছিলেন বলে চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ্যে এনেছেন মার্কিন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ’র সাবেক এক বিশ্লেষক।

জর্জ বিবি নামে বুশ প্রশাসনের সিআইএ’র এই বিশ্লেষক তার বই দ্য রাশিয়ান ট্র্যাপ: হাউ আওয়ার শেডো ওয়ার উইথ রাশিয়া ক্যান টার্ন ইনটু এ নিউ ক্লিয়ার ক্যাটাসট্রোফি) এ চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ করেছেন। গত সপ্তায় তার বইটি প্রকাশ পায়। আর তা প্রকাশ্যে আসার পরেই নড়েচড়ে বসেছে গোটা বিশ্ব। তবে এ পর্যন্ত রাশিয়ার পক্ষ থেকে কিছুই জানানো হয়নি।

তিনি বলেছেন, হামলার ঠিক দুদিন আগে প্রেসিডেন্ট পুতিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বুশকে টেলিফোন করেন। তিনি রাশিয়ার গোয়েন্দা সংস্থার তথ্য দিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টকে সতর্ক করেন। পুতিন বুশকে সাবধান করে বলেন, ভয়ঙ্কর ধরনের জঙ্গি হামলার শিকার হতে পারে আমেরিকা। এখনই সতর্ক হোন।

শুধু তাই নয়, দীর্ঘ প্রস্তুতির পর এই হামলা আফগানিস্তান থেকে আসতে পারে বলে রাশিয়ার গোয়েন্দা তথ্যে দিয়ে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্টকে সতর্ক করা হয়। জর্জ বিবি বলছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন ব্যক্তিগতভাবে বুশকে লক্ষ্য করে এই যে সতর্কবার্তা দিয়েছিলেন তার অর্থ হচ্ছে এটি শুধুমাত্র গোয়েন্দাসংস্থা পর্যায়ের সীমাবদ্ধ ছিল না।

আমেরিকার অনেক সরকারি কর্মকর্তার দাবি, নাইন ইলেভেনের হামলায় ১৯ জন আলে-কায়েদা জঙ্গি অংশ নিয়েছিল। তবে অনেক বিশেষজ্ঞ মার্কিন এই তথ্য নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। তারা মনে করেন মার্কিন সরকারের ভেতরে এমন এক চক্রের অস্তিত্ব ছিল তারাও এতে জড়িত।

যদিও শুধু রাশিয়াই নয়, পাশাপাশি ব্রিটিশ গোয়েন্দা সংস্থা আমেরিকাকে এই ধরনের হামলার ব্যাপারে সতর্ক করেছিল। এমনকি মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থাও তৎকালীন বুশ সরকারকে সতর্ক করেছিল। তবে কেন মার্কিন সরকার গোয়েন্দা তথ্যকে আমল দেয় নি সে ব্যাপারে আজও রহস্য রয়ে গেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

nineteen − 2 =