Templates by BIGtheme NET
২ আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং , ১৭ মুহাররম, ১৪৪১ হিজরী
Home » আন্তর্জাতিক » পাকিস্তান আবারো ব্ল্যাক লিস্টে

পাকিস্তান আবারো ব্ল্যাক লিস্টে

প্রকাশের সময়: আগস্ট ২৪, ২০১৯, ৮:৩৪ অপরাহ্ণ

সন্ত্রাসে মদদে দেওয়ার জন্য আগেও পাকিস্তান ধাক্কা খেয়েছে। এবার আবারো কালো তালিকাভুক্ত করা হল পাকিস্তানকে। মূলত টেরর ফান্ড ও আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগে পাকিস্তানে ব্ল্যাক লিস্টে রাখল ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্স বা এফএটিএফ (FATF)। ২৩ আগস্ট পাকিস্তানকে তালিকাভূক্ত করেছে আন্তর্জাতিক এই সংস্থাকে।

জানা যায়, ৪০টি মাপকাঠির মধ্যে ৩২টিতেই ব্যর্থ পাকিস্তান। তাই তাদের কালো তালিকাভূক্ত করা হয়। অস্ট্রেলিয়ায় চলছে  এফএটিএফ এর বৈঠক। দু’দিনব্যাপি সাত ঘণ্টা চলে সেই বৈঠক। এরপরই পাকিস্তানের ব্যাপারে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

জাতিসংঘের ঘোষণার পরও সাবধান হয়নি পাকিস্তান৷ নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠনকে আর্থিক সাহায্য করে। নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন জামাত উদ দাওয়া,লস্কর-ই-তৈয়েবা, জইশ- ই- মুহাম্মদের মতো জঙ্গি সংস্থাকে অর্থ সাহায্য করছে পাকিস্তান৷

ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্সের এশিয়া প্যাসিফিক বিভাগের অর্থ-তছরুপ ও সন্ত্রাসবাদে মদদের বিষয়ে নির্ধারিত ৪০টি প্যারামিটারের মধ্যে পাকিস্তান ৩১টিতে অনুপযুক্ত হয়েছে। তবে প্রতিষ্ঠানটি বলছে, ইসলামাবাদের এখন মনোযোগী হলে অক্টোবরের মধ্যেই কালো তালিকাভুক্ত হওয়া এড়াতে পারবে।

এর আগে ২০১৮ সালের জুন মাস থেকে পাকিস্তান ধূসর তালিকায় ছিল। পাকিস্তানের দেশীয় আইন আর্থিক তছরুপ এবং সন্ত্রাসবাদের তহবিল গঠন বন্ধ করার মতো চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় দুর্বল বলে বিবেচিত হওয়ায় দেশটিকে ধূসর তালিকায় রাখা হয়েছিল।

নিষিদ্ধ ঘোষণার পরও পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশ সরকারের সাহায্য পাচ্ছে জঙ্গি সংগঠনগুলো৷ পরে, পাকিস্তান সরকারই সংগঠনগুলোর পাশে দাঁড়ায়৷ ২০০৯ সালে সেই ঘোষণাও করে পাঞ্জাব সরকার৷

১৯৮৯ সালে আর্থিক কারচুপি,জঙ্গি সংগঠনগুলিকে আর্থিক সাহায্যের মতো বিষয়গুলো থেকে আটকাতে আন্তর্জাতিক স্তরে গঠিত হয় Financial Action Task Force৷। যে দেশগুলো আন্তর্জাতিক নিয়মের তোয়াক্কা না করে জঙ্গি সংগনগুলোকে আর্থিক সাহায্য করছে তাদের কালো তালিকায় আনছে সংস্থাটি।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

four × five =